শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসে বাসদ-এর শ্রদ্ধাঞ্জলি অর্পণ

শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে বাংলাদেশের সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির পক্ষ থেকে আজ ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯ ভোর ৬টায় দলীয় কার্যালয়ে কালোপতাকা উত্তোলন ও জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত করা হয়। এরপর সকাল ৭:৩০টায় কেন্দ্রীয় কার্যালয় থেকে যাত্রা করে সকাল ৮:৩০টায় রায়ের বাজার বধ্যভূমি স্মৃতিসৌধে এবং ৯:৩০টায় মিরপুর শহীদ বুদ্ধিজীবী স্মৃতিস্তম্ভে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে পুষ্পমাল্য অর্পণ করা হয়।

বাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক কমরেড খালেকুজ্জামান ও কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য কমরেড রাজেকুজ্জামান রতন এর নেতৃত্বে এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন বাসদ ঢাকা মহানগর নেতা জুলফিকার আলী, খালেকুজ্জামান লিপন, মুক্তিযোদ্ধা শাহাজান কবীর, মাহফুজুর রহমান, আব্দুল্লাহ আল মামুন, আব্দুল্লাহ শাহরিয়ার সাগর, আল কাদেরী জয়, রুখসানা আফরোজ আশা, বাবু হোসেনসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।

শ্রদ্ধাঞ্জলি অপর্ণ শেষে এক সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে কমরেড খালেকুজ্জামান বলেন, সারা দেশের মানুষ আজ ১৪ ডিসেম্বর শ্রদ্ধায় শহীদ বুদ্ধিজীবীদের স্মরণ করে। একই সাথে গভীর বেদনায় ভারাক্রান্ত হয় যখন দেখে যে বুদ্ধিবৃত্তিক চেতনায় গণআকাঙ্খাকে তুলে ধরার জন্য বুদ্ধিজীবীদেরকে পাক হানাদারবাহিনী ও তাদের দোসর রাজাকার-আলবদরদের হাতে প্রাণ দিতে হয়েছিল, সেই চেতনার ও আকাঙ্খা-স্পপ্নের দেশ এখনও বহু দূরবর্তী রয়ে গেছে। শহীদ বুদ্ধিজীবীদের পূর্ণ তালিকা যেমন ৪৮ বছরে হয়নি, তেমনি তাদের সমৃদ্ধ আলোকিত চেতনাকে নব প্রজন্মের কাছে তুলে ধরার কাজও রাষ্ট্রীয়ভাবে করা হচ্ছে না। শুধু বন্দনা-গীত গেয়ে ঐ চেতনার ও চেতনা সমৃদ্ধ শহীদ বুদ্ধিজীবীদের মর্যাদা প্রতিষ্ঠা করা যায় না।

তিনি শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবসে মুক্তিযুদ্ধের প্রকৃত চেতনা সেক্যুলার, গণতান্ত্রিক রাষ্ট্র এবং শোষণমুক্ত সমাজ প্রতিষ্ঠার সংগ্রাম বেগবান করার লক্ষ্যে বাম বিকল্প শক্তিকে জোরদার করার জন্য দেশবাসীর প্রতি আহ্বান জানান।

Check Also

দেশে এখন ভয়াবহ অবস্থা বিরাজমান: ডা. জাফরুল্লাহ

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ও ট্রাস্টি ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেছেন, ‘দেশে এখন ভয়াবহ অবস্থা বিরাজমান। কভিড-১৯ …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *