জন্মদিনের পার্টিতে ৪ বন্ধু মিলে বান্ধবীকে গণধর্ষণ

জন্মদিনের অনুষ্ঠান চলাকালীন ৪ বন্ধুর লালসার শিকার হলেন ১৯ বছরের এক তরুণী। ঘটনার পর ওই তুরুণী এতটাই ভেঙে পড়েন যে, প্রায় একমাস বিষয়টি কাউকে বলেননি। কিন্তু সম্প্রতি গুরুতর অসুস্থ হওয়ার পর গোটা ঘটনা সামনে আসে।

ভারতের মুম্বাই শহরের চেম্বুর নামক এলাকায় সম্প্রতি এই ঘটনা ঘটেছে। পুলিশ অজ্ঞাত পরিচয় ৪ অভিযুক্তের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেছে।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, ধর্ষণের শিকার ওই তরুণী প্রকৃতপক্ষে মহারাষ্ট্রের অওরঙ্গাবাদ নামক এলাকার বাসিন্দা। গত ৭ জুলাই তিনি মুম্বাইয়ে আসেন।

ভারতীয় গণমাধ্যমগুলো বলছে, গত ৭ জুলাই ছিলো ওই তরুণীর জন্মদিন। সে উপলক্ষ্যে তাকে মুম্বাইয়ে ডাতে তার বন্ধুরা। ছোটখাটো ঘরোয়া অনুষ্ঠানের আয়োজনও করে তারা। কেক কাটা হলে ৪ বন্ধু মিলে ওই তরুণীকে গণধর্ষণ করে। কিন্তু ঘটনার পর তরুণী পুলিশের কাছে বিষয়টি জানাতে লজ্জা পান। থানায় যাওয়ার বদলে ঘটনার পর ফিরে যান নিজের বাড়িতে। পরিবারেরও কাউকে কিছু জানাননি তিনি। সামাজিকভোবে হেয় হবার ভয়ে পুরো ঘটনা সবার কাছ থেকে আড়াল করার চেষ্টা করেন।

কিন্তু তার শারীরিক অবস্থার কারণে ঘটনাটি বেশিদিন চাপা থাকেনি। গত ২৪ জুলাই আচমকা তার যৌনাঙ্গে যন্ত্রণা শুরু হয়। স্থানীয় হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পর চিকিৎসকদের সন্দেহ হলে তারা পুলিশকে বিষয়টি জানান। তারপরই বিষয়টি সামনে আসে।

তারপর গত ৩০ জুলাই বাবাকে ঘটনার বিস্তারিত জানান ধর্ষণের শিকার নির্যাতিতা ওই তরুণী। তিনি নিজেই স্থানীয় বেগমপুরা থানায় মামলা দায়ের করেন। পরে অবশ্য মামলাটি চুনাভাট্টি নামক থানায় স্থানান্তর করা হয়। এখন পর্যন্ত অভিযুক্তদের শনাক্ত করা যায়নি। চিকিৎসাধীন ওই তরুণীর অবস্থা গুরুতর বলে জানিয়েছে পুলিশ ও হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

Check Also

ভারতে কোভিড হাসপাতালে অগ্নিকাণ্ড: নিহত ৫

ঢাকাঃ ভারতে একটি কোভিড হাসপাতালে আগুন লেগে ৫ রোগীর মৃত্যু হয়েছে। দগ্ধ হয়েছেন আরও অনেকেই। …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *