কাশ্মিরের যে ছবিটি বিশ্ববাসীকে কাঁদিয়েছে!

মাত্র বছর পাঁচের একটি শিশু প্লাস্টিকের গুলতি তাক করে আছে অস্ত্রে সজ্জিত সেনার দিকে; কাশ্মিরের এমন একটি ছবিতে তোলপাড় পড়ে গেছে বিশ্বে। স্বাধীনতাকামী কাশ্মিরিদের আন্দোলনের এক পর্যায়ে ছবিটি তোলেন এক ভারতীয় ফটোগ্রাফার। যা কাশ্মিরিদের আন্দোনের এক প্রতিকী রূপ হয়ে ঘুরছে সামাজিক মাধ্যমে।

এক মাস আগে কাশ্মিরের স্বাধীনতাকামী নেতা বুরহানের মৃত্যুর পর থেকেই উত্তাল হয়ে আছে ‘ভূ-স্বর্গ’। চলছে কাশ্মিরিদের প্রতিবাদ, মিছিল, সমাবেশ। এর মধ্যে অনেক স্বাধীনতাকামী প্রাণ হারিয়েছেন সেনাদের গুলিতে। অনেকে আহত হয়ে পড়ে আছেন হাসপাতালে।

সেনাদের শক্তির তুলনায় কাশ্মিরের স্বাধীনতাকামীরা নিতান্তই নগন্য, দুর্বল। তারপরও তাদের আন্দোলন থেমে নেই। ছররা গুলির আঘাতে ক্ষতবিক্ষত কাশ্মিরিরা চোখের পানি আটকে রেখেই নেমে পড়ছেন রাজপথে। ক্ষতস্থান থেকে টপটপ করে পড়ছে রক্ত- তাতে ভ্রুক্ষেপ নেই তাদের। তাদের ভ্রুক্ষেপ এবং সব মনোযোগ কেবল স্বাধীনতার দিকে।

স্বাধীনতার তীব্র আকাঙ্খার কারণেই সেনাদের অস্ত্রকে তুচ্ছ তাচ্ছিল্য করে যুদ্ধে নেমে পড়েছে কাশ্মিরিরা। সেই যুদ্ধের দামামা বেজে ওঠেছে পাঁচ বছরের ছোট্ট শিশুটির মনেও। তার প্লাস্টির গুলতির ছোড়া গুলি ওই সেনার শরীর পর্যন্ত পৌঁছাবেই না, তারপরও তার কোনো ভয় নেই। এমন একটা সাহসের ছবি নিয়ে চলছে জোর আলোচনা।

 ছবিতে বিশ্বে তোলপাড়

ছবিটি যিনি তুলেছেন, তার নাম আদিত্য রাজ। তিনি টুইটারে ছবিটি পোস্ট করে লিখেন যে, ‘সেনার সামনে প্লাস্টিকের গুলতি নিয়ে খেলছে একটি শিশু।’

কিন্তু তার এই ‘খেলার’ কথাটা মানতে পারছেন না ভারতের সাবেক আইপিএস অফিসার সঞ্জিব ভট্ট। তিনি বলছেন, পাঁচ বছরের শিশুও যখন কোনো সেনার দিকে অস্ত্র তাক করে, তখন বুঝতে হবে কাশ্মির নিয়ে ভারত কোনো ভুল করছে।

Check Also

ভারতে কোভিড হাসপাতালে অগ্নিকাণ্ড: নিহত ৫

ঢাকাঃ ভারতে একটি কোভিড হাসপাতালে আগুন লেগে ৫ রোগীর মৃত্যু হয়েছে। দগ্ধ হয়েছেন আরও অনেকেই। …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *