উয়ারী-বটেশ্বর

উয়ারী-বটেশ্বর

তথ্যঃ

উয়ারী-বটেশ্বর’ বাংলাদেশের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ প্রত্নতাত্ত্বিক স্থান।
এটি নরসিংদী জেলার উত্তর-পূর্ব দিকে অবস্থিত।
নরসিংদী জেলার বেলাব উপজেলা ও শিবপুর উপজেলায় অবস্থিত দুটি গ্রাম, এদের একটির নাম উয়ারী এবং অন্যটির নাম ‘বটেশ্বর।
১৯৩০ সালে স্কুল শিক্ষক হানিফ পাঠানের সহায়তায় এটি জনসমক্ষে আসে।
কার্বন-১৪ পরীক্ষায় জানা যায় এটি প্রায় আড়াই হাজার বছরের পুরােনাে তথা খ্রিষ্টপূর্ব ৪৫০ অব্দের ।

প্রশ্ন: উয়ারী-বটেশ্বর গ্রামে কোন সময়ে নগর সভ্যতা গড়ে উঠেছিল?

উ: আড়াই হাজার বছর আগে।

প্রশ্ন: উয়ারী-বটেশ্বর খনন কাজের নেতৃত্ব দেন কে?

উ: জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রত্নতান্ত্রিক বিভাগের অধ্যাপক সুফি মুস্তাফিজুর রহমান।

প্রশ্ন: উয়ারী-বটেশ্বর খননের ফলে কোনটি আবিষ্কৃত হয়?

উঃ মাটির নিচে অবস্থিত একটি দুর্গ নগর, বন্দর এবং ছাপাঙ্কিত রৌপ্য মুদ্রার ভাতার আবিষ্কৃত হয়েছে।

প্রশ্ন: মাটির নিচের শহর’ নামে খ্যাত কোনটি?

উঃ উয়ারী-বটেশ্বর।

প্রশ্ন: উয়ারী-বটেশ্বর কোন নদীর তীরে অবস্থিত?

উঃ পুরাতন ব্রহ্মপুত্র নদ।

নোট মোস্তাফিজার মোস্তাক

Check Also

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সংক্ষিপ্ত জীবনী

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সংক্ষিপ্ত জীবনী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জীবনী থেকে কেবল পরীক্ষায় আসার …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *